এই সময়ে বিশ্বসাহিত্যের অন্যতম শ্রেষ্ঠ লেখক গুন্টার গ্রাস আর উপন্যাস লিখবেন না। তাঁর বয়স এখন ৮৬। ১৯৯৯ সালের নোবেলজয়ী, দ্য টিন ড্রাম, ক্যাট অ্যান্ড মাউজ ইত্যাদি কালজয়ী উপন্যাসের স্রষ্টা গুন্টার গ্রাস গত সপ্তাহে জার্মান পত্রিকা পাসায়ের ন্যু প্রেসকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেছেন, তিনি এখন যে বয়সে এসে পৌঁছেছেন, তাতে করে তাঁর শরীর এখন আর উপন্যাস লেখার জন্য উপযুক্ত নয়। বর্তমানে তিনি আঁকাআঁকির কাজেই ব্যস্ত রেখেছেন নিজেকে।

গুন্টার গ্রাস(জন্ম অক্টোবর ১৬, ১৯২৭)সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার বিজয়ী জার্মান সাহিত্যিক, চিত্রকর, ভাস্কর এবং নাট্যকার। তিনি ১৯৯৯ সালে সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। তাকে জার্মানীর সবচেয়ে জনপ্রিয় জীবিত লেখক হিসেবে ব্যাপকভাবে বিবেচনা করা হয়।

gunter-grass_amrajaraboipori

গ্রাস বর্তমান পোল্যান্ডের জিডানস্কে (পূর্বে দানজিগ) শহরে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৪৫ সালে তিনি বসতিহীন একজন উদ্বাস্তু হিসেবে পশ্চিম জার্মানিতে চলে আসেন কিন্তু তার কল্পনায় তিনি সবসময় দানজিগে তার শৈশবে ফিরে যেতেন।

গ্রাস তার প্রথম উপন্যাস টিন দ্রুম (১৯৫৯)-এর জন্য বিখ্যাত যা ইউরোপীয় জাদু বাস্তবতার একটি অন্যতম শ্রেষ্ঠ লেখনী এবং দানজিগ ত্রয়ীর প্রথম অংশ যাতে বিড়াল, ইঁদুর ও কুকুরের বছর উল্লেখ রয়েছে। তার লেখা সবসময় বামপন্থী রাজনৈতিক লেখা হিসেবে ধরা হয়ে থাকে এবং তিনি সোসাল ডেমোক্রেটিক পার্টি অফ জার্মানির একজন সক্রিয় সমর্থনকারী। টিন দ্রুম উপন্যাসটি নিয়ে একটি চলচ্চিত্র নির্মান করা হয়েছে যা ১৯৭৯ সালে পাম ডি’অর ও বিদেশী ভাষার সেরা চলচ্চিত্র হিসেবে একাডেমি পুরস্কার অর্জন করে।
সূত্র:প্রথম আলো